০৫:৩৭ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কাবা শরিফ ও মসজিদে নববীতে বিয়ের অনুমতি

Reporter Name
  • No Update : ১২:৪৯:৫৯ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২৪
  • / 968

পবিত্র নগরী মক্কা ও মদিনা, সংগৃহীত ছবি

পবিত্র নগরী মক্কা ও মদিনায় বিয়ে পড়ানোর অনুমতি দিয়েছে সৌদি আরব। পবিত্র দুই নগরীতে আসা দর্শনার্থী ও হজ যাত্রীদের অভিজ্ঞতাকে আরও সমৃদ্ধ করার জন্য এই সিদান্ত নেওয়া হয়েছে। সৌদি আরবের সংবাদমাধ্যমের বরাত দিয়ে এ তথ্য জানিয়েছে গালফ নিউজ।

গালফ নিউজের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, পবিত্র নগরী মক্কার গ্রান্ড মসজিদ এবং মদিনার মসজিদে আল নববীতে স্বস্তিতে যেন বিয়ে পড়ানো যায়, সেজন্য এই উদ্যোগ নিয়েছে হজ ও উমরাহ মন্ত্রণালয়।

বিশেষজ্ঞরা বলেছেন, পবিত্র দুই মসজিদে বিয়ে আয়োজন বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের জন্য ব্যতিক্রম আইডিয়া নিয়ে আসার জন্য এটি একটি বড় সুযোগ।

মাসুদ আল জাবরি নামের সৌদির এক বিবাহ কর্মকর্তা জানিয়েছেন, মসজিদে বিয়ে পড়ানোর ক্ষেত্রে ধর্মীয় সম্মতি আছে। মহানবী হযরত মোহাম্মদ (সাঃ) একবার এক সহযোগীর বিয়ে মসজিদে পড়িয়েছিলেন।

মাসুদ আরও জানিয়েছেন, মদিনার যে স্থানীয় মানুষ আছেন তাদের অনেকেই এখনই মসজিদে নববীতে বিয়ের কার্য সম্পাদন করেন।

তিনি বলেছেন, বিভিন্ন কারণে মদিনাবাসী এটি করেন। মদিনার অনেক মানুষ ঐতিহ্যগতভাবে বিয়েতে তাদের সব আত্মীয়-স্বজনকে দাওয়াত দেন। বেশিরভাগ সময়ই কনের পরিবার সবার জন্য ঘরে জায়গা করতে পারে না। ফলে মসজিদে মসজিদে নববী বা কাবায় এসে বিয়ে পড়ানো হয়।

 

Please Share This Post in Your Social Media

Write Your Comment

About Author Information

Bangladesh Diplomat | বাংলাদেশ ডিপ্লোম্যাট

Bangladesh Diplomat | বাংলাদেশ ডিপ্লোম্যাট | A Popular News Portal Of Bangladesh.

কাবা শরিফ ও মসজিদে নববীতে বিয়ের অনুমতি

No Update : ১২:৪৯:৫৯ পূর্বাহ্ন, রবিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২৪

পবিত্র নগরী মক্কা ও মদিনায় বিয়ে পড়ানোর অনুমতি দিয়েছে সৌদি আরব। পবিত্র দুই নগরীতে আসা দর্শনার্থী ও হজ যাত্রীদের অভিজ্ঞতাকে আরও সমৃদ্ধ করার জন্য এই সিদান্ত নেওয়া হয়েছে। সৌদি আরবের সংবাদমাধ্যমের বরাত দিয়ে এ তথ্য জানিয়েছে গালফ নিউজ।

গালফ নিউজের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, পবিত্র নগরী মক্কার গ্রান্ড মসজিদ এবং মদিনার মসজিদে আল নববীতে স্বস্তিতে যেন বিয়ে পড়ানো যায়, সেজন্য এই উদ্যোগ নিয়েছে হজ ও উমরাহ মন্ত্রণালয়।

বিশেষজ্ঞরা বলেছেন, পবিত্র দুই মসজিদে বিয়ে আয়োজন বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের জন্য ব্যতিক্রম আইডিয়া নিয়ে আসার জন্য এটি একটি বড় সুযোগ।

মাসুদ আল জাবরি নামের সৌদির এক বিবাহ কর্মকর্তা জানিয়েছেন, মসজিদে বিয়ে পড়ানোর ক্ষেত্রে ধর্মীয় সম্মতি আছে। মহানবী হযরত মোহাম্মদ (সাঃ) একবার এক সহযোগীর বিয়ে মসজিদে পড়িয়েছিলেন।

মাসুদ আরও জানিয়েছেন, মদিনার যে স্থানীয় মানুষ আছেন তাদের অনেকেই এখনই মসজিদে নববীতে বিয়ের কার্য সম্পাদন করেন।

তিনি বলেছেন, বিভিন্ন কারণে মদিনাবাসী এটি করেন। মদিনার অনেক মানুষ ঐতিহ্যগতভাবে বিয়েতে তাদের সব আত্মীয়-স্বজনকে দাওয়াত দেন। বেশিরভাগ সময়ই কনের পরিবার সবার জন্য ঘরে জায়গা করতে পারে না। ফলে মসজিদে মসজিদে নববী বা কাবায় এসে বিয়ে পড়ানো হয়।